নীড় পাতা » বিশেষ আয়োজন

বিশেষ আয়োজন

পার্বত্য আলোকচিত্র প্রতিযোগিতা-২০১৬

ছবিতো আপনি প্রতিদিনই তোলেন,কারণে বা অকারণেই। এবার আপনার ক্যামেরায় কিংবা মোবাইলে তুলুর আপনারই প্রিয় শহর,জন্মভূমির অসাধারণ কোন দৃশ্য,হোক তা প্রাকৃতিক কিংবা বিমূর্ত। কিংবা বিষয়বৈচিত্র্যে ভরপুর। তবে অবশ্যই ছবিটি হতে হবে পার্বত্য চট্টগ্রামের তিন জেলা রাঙামাটি,খাগড়াছড়ি কিংবা বান্দরানের। আপনার প্রিয় অনলাইন দৈনিক পাহাড়টোয়েন্টিফোর ডট কম এবং দৈনিক পার্বত্য চট্টগ্রাম  ‘সেলফি কনটেস্ট’ এর সফল আয়োজনের পর এবার আয়োজন করছে আলোকচিত্র প্রতিযোগিতা-২০১৬,যার শ্লোগান- …

বিস্তারিত পড়ুন

পার্বত্য চট্টগ্রাম চুক্তির ১৮ বর্ষে পদার্পন আজ

আজ ২ ডিসেম্বর। পার্বত্য চুক্তির ১৭ বছর পূর্তি। পাহাড়ি জনগণের অধিকার আদায়ের লক্ষ্যে সত্তরের দশকে পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতির নেতৃত্বে পাহাড়ে শুরু হয় সশস্ত্র আন্দোলন। প্রায় দুই দশকের বেশি সময় ধরে রক্তস্নাত সবুজ পাহাড়ে অস্ত্রের ঝনঝনানি, বারুদের গন্ধ আর চরম অশান্ত পরিস্থিতির পর সংগঠনটি ১৯৯৭ সালের আজকের দিনে সরকারের সাথে চুক্তি সম্পাদিত হয়। সরকারের পক্ষে চুক্তি স্বাক্ষর করেন গনপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ …

বিস্তারিত পড়ুন

ভাষা শিক্ষায় আশার আলো

একটা সময় ছিলো যখন প্রাথমিক স্তরে মাতৃভাষা শিক্ষার ক্ষেত্রে সরকারকে অন্যতম প্রতিবন্ধকতা মনে করতেন অনেকেই। কিন্তু সময়ের বিবর্তনে বদলেছে সেই দৃষ্টিভঙ্গীর,সরকারি মনোভাব। এখন প্রাথমিক স্তরে মাতৃভাষা শিক্ষার ক্ষেত্রে সরকারকে বেশ দায়িত্বশীল ও আন্তরিক মনে করেন ভাষা নিয়ে কাজ করা বিশিষ্টজনরা। তবে সরকারি আন্তরিকতা নিয়ে প্রশ্ন না থাকলেও কাজের গতি নিয়ে আপত্তি জানিয়েছেন তারা। সংশ্লিষ্টদের সাথে কথা বলে জানা গেছে,জাতীয় শিক্ষানীতি-২০১০,পিডিপি-১/২.পার্বত্য …

বিস্তারিত পড়ুন

আমাদের প্রভাংশু ত্রিপুরা

লেখক, সাহিত্যিক প্রভাংশু ত্রিপুরা ২০১৩ সালের জন্য গবেষনায় সামগ্রিক অবদানের স্বীকৃতিস্বরুপ বাংলা একাডেমী পুরস্কারে ভূষিত হয়েছেন। ১৯৬০ সালে বাংলা একাডেমী প্রবর্তিত হওয়ার পর এই প্রথম কোন আদিবাসী লেখক এই সম্মানজনক পুরস্কারে ভূষিত হয়েছেন। গবেষক প্রভাংশু ত্রিপুরা একজন সাধারণ গৃহস্থ্ পরিবারের সন্তান হয়েও ছেলেবেলা থেকে লেখালেখির প্রতি তাঁর দারুন ঝোঁক ছিল। তাই গবেষণায় পুরস্কার প্রাপ্যতা তারই ফলশ্রুতি। খাগড়াছড়ি সরকারী কলেজে অধ্যয়ন …

বিস্তারিত পড়ুন

প্রভাংশু ত্রিপুরা : আমাদের গৌরব আমাদের অহংকার

প্রভাংশু ত্রিপুরা একজন বলিষ্ঠ মানুষ। জীবনের প্রতিটি বাঁকে বাঁকে যিনি সাফল্যের ছোঁয়া রেখেছেন। তাঁর ঐকান্তিক নিষ্ঠা, আন্তরিকতা প্রয়াস তাকে সাফল্যের কাছে নিয়ে গেছে। একনিষ্ঠ চিন্তা, গবেষণা এবং প্রকাশের আঙ্গিক তাঁর সাফল্যেকে সত্যনিষ্ঠ করেছে। প্রভাংশু ত্রিপুরা বাংলা একাডেমী পুরস্কার পেয়েছেন এবছর। অর্থাৎ ২০১৪ সালে। তাঁর এই অর্জন আমাদের গৌরব। আমাদের অহংকার। পার্বত্য অঞ্চলের প্রতিটি জাতিসত্ত্বার আলোকিত জীবনে উদ্ভাসিত হবার প্রেরণা, উদ্দীপনা। …

বিস্তারিত পড়ুন

শুভমসুন্দরম শ্রী প্রভাংশু ত্রিপুরা

১৯৭৪ সনে স্থাপিত জেলার মধ্যে খাগড়াছড়ি কলেজই একমাত্র বেসরকারি কলেজ। নতুন স্থাপিত এ কলেজে ১৯৭৪-১৯৭৫ শিক্ষাবর্ষে প্রথম শিক্ষা কার্যক্রম শুরু হয় মাত্র ৬০জন শিক্ষার্থী নিয়ে। তারপর বৎসরান্তে পরবর্তী শিক্ষাবর্ষ ১৯৭৫-১৯৭৬এর শিক্ষা কার্যক্রমও শুরু হয় শিক্ষা বোর্ডের নির্ধারিত সময়ে। এ শিক্ষাবর্ষে অন্য দশ শিক্ষার্থীর ন্যায় শান্ত-সৌম্য স্বভাবের অজ পাড়াগাঁয়ের জনৈক এক শিক্ষার্থীও ভর্তি নেয় একাদশ শ্রেনির মানবিক শাখায়। এ শিক্ষার্থী আর …

বিস্তারিত পড়ুন

প্রচারবিমুখ ও নিভৃতচারী এক লেখকের স্বীকৃতি

অতীতে পার্বত্য চট্টগ্রামের আদিবাসীদের বুদ্ধি-বৃত্তির চর্চা বা জ্ঞান- চর্চা চিন্তার জগৎ বলতে রাঙ্গামাটি সদরকেই বুঝানো হত। কেননা বৃটিশ আমলের সৃষ্ট প্রশাসনিক কেন্দ্রবিন্দু, চাকমা রাজপরিবার ও তার বলয় এবং পাকিস্তান আমলে রাঙ্গামাটি কলেজ প্রতিষ্ঠিত হওয়ার পর রাঙ্গামাটি জ্ঞান-চর্চার ক্ষেত্ররূপে পরিচিতি লাভ করে। তখনকার সময়ে বিভিন্ন পূজা- পার্বন উপলক্ষে মাঝে মধ্যে কিছু ম্যাগাজিন প্রকাশিত হত। সেখানে অনেক জ্ঞানগর্ভ রচনা থাকত। ঊনিশ‘শ আশির …

বিস্তারিত পড়ুন

অরণ্যের আলোক শিখা – প্রভাংশু ত্রিপুরা

‘নিতান্ত কৌতুহলের বসে একদিন চট্টগ্রামের এনায়েত বাজারের গোয়াল পাড়াস্থ একটি বাড়ীতে হাজির হলাম। পরিত্যক্ত দোতালা বাড়ী। সিঁড়ি বেয়ে দোতালায় উঠলাম। ডানপাশে একটি ঘরে প্রবেশ করলাম। দুটি মাঝারি আকারের কক্ষ, একটি বড় বারান্দা এবং একটি শৌচালয়। একটি রুমের মাঝ বরাবর পাটি বিছানো কাঠের একটি চৌকি, তিনটি প্রায় ভাঙ্গা চেয়ার, একটি পুরোনো টেবিল, কিছু হাড়ি-পাতিল, একটি কেরোচিনের চুল্লি, ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা কিছু …

বিস্তারিত পড়ুন

প্রিয়বরেষু প্রভাংশু ত্রিপুরা

তুমি অবয়বে আটপৌরে সাধারণ একজন মানুষ। সাধারণ খোলসের ভেতরে কি অসাধারণ শক্তি লুকিয়ে ছিল, তা কি কেউ জান্ত? না। তুমি প্রমাণ করেছো সাধনা ও অধ্যবসায়ের মাধ্যমে পৃথিবী জয় করা সম্ভব। গবেষণায় সামগ্রিক অবদানের জন্য জাতীয় প্রতিষ্ঠান বাংলা একাডেমী তোমায় স্বীকৃতি দিল, পুরস্কৃত করলো। কে বলেছে আমাদের দেশে গুনীর কদর হয়না? তুমি গুণী। তুমি সারা জীবন যে শেকড়ের সন্ধান করেছো, তা …

বিস্তারিত পড়ুন