নীড় পাতা » ব্রেকিং » ৩৫ কাঠুরিয়া হত্যার বিচার দাবি

লংগদুর পাকুয়াখালীতে

৩৫ কাঠুরিয়া হত্যার বিচার দাবি

সংবাদ সম্মেলন

১৯৯৬ সালের ৯ সেপ্টেম্বর রাঙামাটির লংগদু উপজেলার পাকুয়াখালীতে ৩৫ কাঠুরিয়াকে হত্যার বিচার দাবি ও ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের সদস্যদের পুনর্বাসনের দাবি জানিয়েছে পার্বত্য চট্টগ্রাম সম-অধিকার আন্দোলন। সোমবার দুপুরে পাকুয়াখালী গণহত্যার ২৩ বছর উপলক্ষে রাঙামাটিতে এক সংবাদ সম্মেলনে সম-অধিকার আন্দোলনের নেতারা এ দাবি জানান। শহরের এক অভিজাত রেস্টুরেন্টে এ সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন, পার্বত্য চট্টগ্রাম সম-অধিকার আন্দোলনের সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর আলম। এতে উপস্থিত ছিলেন, সম-অধিকার আন্দোলনের সিনিয়র সহ-সভাপতি মো. শাহজাহান, সহ-সভাপতি মো. শাহ আলম, সাংগঠনিক সম্পাদক মো. আবু বক্কর ছিদ্দিক, অর্থ সম্পাদক মতিউর রহমান বিশ্বাস, প্রচার সম্পাদক মো. শাহজাহানসহ অন্যান্য নেতৃবৃন্দ।

২৩ বছর পরও পাকুয়াখালী গণহত্যার বিচার না হওয়ায় ক্ষোভ জানিয়ে লিখিত বক্তব্যে সম-অধিকার আন্দোলনের সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর আলম বলেন, ‘তৎকালীন শান্তি বাহিনী মিটিং এর মিথ্যা আশ^াস দিয়ে ডেকে নিয়ে ৩৫ জন বাঙালি কাঠুরিয়াকে নির্মমভাবে হত্যা করে। এই নৃশংস গণহত্যার পর তদন্ত কমিটি গঠন করা হলেও আজও সেই তদন্ত রিপোর্ট আলোর মুখ দেখেনি। ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারদের পুনর্বাসন করার কথা থাকলেও কোনো সরকার তাদের খবর রাখেনি।’

তিনি বলেন, ‘১৯৯৭ সালে শান্তি বাহিনী সরকারের সাথে চুক্তি করে অস্ত্র জমা দিলেও তারা এখনও তাদের পূর্বের অবস্থানে থেকে সরে আসেনি। উল্টো সংগঠনটি সন্ত্রাসী কর্মকান্ড চালিয়ে যাচ্ছে। তারা অস্ত্রের মজুদ বাড়িয়ে পাহাড়কে অশান্ত করার চেষ্টায় লিপ্ত রয়েছে। পাহাড়ে যতদিন অবৈধ অস্ত্র থাকবে, ততদিন এখানে পাহাড়ি বাঙালি কেউ নিরাপদ নয়। পাহাড় থেকে দ্রুত অবৈধ অস্ত্র উদ্ধার করতে হবে।’

Micro Web Technology

আরো দেখুন

প্রেমিকের সঙ্গে বিয়েতে পরিবারের অসম্মতি, অতপর…

বান্দরবানের আলীকদম উপজেলায় মুবিনা আক্তার নয়ন (১৬) নামের এক তরুনী গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করেছে …

Leave a Reply