নীড় পাতা » ব্রেকিং » সেই প্রীতি কুমার চাকমা এখন ভারতের ব্যাঙ্গালোরে

সেই প্রীতি কুমার চাকমা এখন ভারতের ব্যাঙ্গালোরে

mn-larma-04পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতি ও সাবেক গেরিলা সংগঠন শান্তিবাহিনীর প্রতিষ্ঠাতা ও পাহাড়ের জুম্ম জনগণের অবিসংবাদিত নেতা মানবেন্দ্র নারায়ন লারমার হত্যাকারি হিসেবে পরিচিত প্রীতি কুমার চাকমা (প্রকাশ) এখন সপরিবারে ভারতে বসবাস করছেন।

একাধিক সূত্র তার সপরিবারে ভারতের ব্যাঙ্গালোরে অবস্থান করার কথা নিশ্চিত করেছে। সেখানে তার সন্তানরা চাকুরি করে এবং প্রায় ৬৫ বছর বয়সী প্রীতি কুমার চাকমা এখন কার্যত কিছুই করেন না।

ভারতের উত্তর ত্রিপুরার প্যাঁচাতল নামক এলাকায় বিজুমেলায় অংশ নিতে একবার ব্যাঙ্গালোর থেকে আসেন প্রীতি কুমার চাকমা। সেখানে বাংলাদেশ থেকে যাওয়া একটি প্রতিনিধিদলের একজন সংবাদকর্মীর সাথে কিছু কথোপকথন হয় প্রীতিকুমার চাকমা’র। সেই কথোপকথনে ১৯৮৩ সালের ১০ নভেম্বর বিষয়ে একেবারেই মুখ না খোলা প্রীতি কুমার চাকমা বলেন,পার্বত্য শান্তিচুক্তি হয়ে ভালোই হয়েছে, তবে চুক্তি বাস্তবায়নে সবার ঐক্যবদ্ধ থাকাটা জরুরী ছিলো।

জনসংহতি সমিতিতে বিভক্তি ও নতুন সংগঠন গড়ে উঠা প্রসঙ্গে তিনি বলেন, নতুন দল করার আগে তাদের একজন নেতা আমার কাছে এসেছিলো এবং সহযোগিতা চেয়েছিলো,কিন্তু আমি অপারগতা প্রকাশ করেছি। নতুন সংগঠন তৈরি ও বিভক্তি ‘ঠিক হয়নি’ বলে মন্তব্য করেন তিনি।

পাহাড়ে বিবাদমান তিন আঞ্চলিক দলের বিরোধ ও বিভেদ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, এদের বিভেদ ও বিভক্তির পেছনে বেশকিছু ফ্যাক্টর আছে। এসব ফ্যাক্টর খুঁজতে ও বুঝতে হবে।
ভারতে অবস্থান নেয়া প্রীতি কুমার চাকমা তার ফেলে যাওয়া মাতৃভূমি পার্বত্য চট্টগ্রামের আগামী প্রজন্মের শিশুদের ইংরেজী শিক্ষায় শিক্ষিত হওয়ার উপরও গুরুত্বারোপ করেন আলাপচারিতায়।

প্রসঙ্গত,১৯৮৩ সালের ১০ নভেম্বর শান্তিবাহিনীর ‘বেঁটে’ গ্রুপ হিসেবে পরিচিত অংশটির এই নেতা প্রীতি কুমার চাকমা ও তার অনুসারিরা ‘লাম্বা’ গ্রুপ হিসেবে পরিচিত ও সংগঠনের প্রতিষ্ঠাতা মানবেন্দ্র নারায়ন লারমা’কে তার কয়েকজন সহযোদ্ধাসহ ভারতীয় সীমান্তবর্তী গোপন গেরিলা সংগঠনটির সদরদপ্তরে নির্মমভাবে হত্যা করে। এই হত্যাকান্ডের পর পাল্টা তীব্র প্রতিরোধের মুখে প্রীতি কুমার চাকমার গ্রুপটি বিপর্যস্ত হয়ে পড়ে। এদের ২৩৩ জন সদস্য রাঙামাটি স্টেডিয়ামে আত্মসমর্পন করে এবং অনেকেই ভারতে পালিয়ে গিয়ে সেখানকার নাগরিকত্ব গ্রহণ করে সেখানেই থেকে যায়।

Micro Web Technology

আরো দেখুন

লকডাউনে ফাঁকা খাগড়াছড়ি, বাড়ছে শনাক্ত

সারা দেশের মতো দ্বিতীয় দফায় সরকারের ঘোষিত লকডাউন চলছে পার্বত্য জেলা খাগড়াছড়িতে। প্রথম দফার লকডাউন …

Leave a Reply