নীড় পাতা » পার্বত্য উন্নয়ন » ‘সরকারী বিধি মোতাবেক এনজিওদের নীতিমালা অনুসরণ করা উচিত’

‘সরকারী বিধি মোতাবেক এনজিওদের নীতিমালা অনুসরণ করা উচিত’

RHDC-Picture-27-01-14-01রাঙামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান নিখিল কুমার চাকমা বলেছেন, পার্বত্য শান্তি চুক্তির আলোকে এ অঞ্চলে অনেক দেশী বিদেশী এনজিও কাজ করার সুযোগ পেয়েছে এবং এ এনজিওতে অনেক বেকার যুবকের কর্মের সংস্থানের সুযোগ সৃষ্টি হয়েছে যার ফলে পরিবারের ভরন পোষনও করতে পারছে। এ কর্মসংস্থানকে টিকিয়ে রাখতে হলে স্বচ্ছতা জবাবদিহিতা এবং অবশ্যই সরকারী নীতিমালা অনুসরণ করতে হবে। এনজিও কর্মকর্তাগন সমন্বয় রেখে কাজ করতে পারলে নিজেদের ও এ অঞ্চলের সাধারণ মানুষের ভাগ্য উন্নয়ন করতে পারবে বলে তিনি আশাবাদ ব্যাক্ত করেন।
সোমবার রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদ সম্মেলন কক্ষে আয়োজিত এনজিও সমন্বয় সভায় সভাপতির বক্তব্য চেয়ারম্যান এ কথা বলেন।
ইউএনডিপি-সিএইচটিডিএফের কর্মকর্তা অর্ণব চাকমার সঞ্চালনায় সভায় পরিষদের মুখ্য নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ ইরফান শরীফ, পার্বত্য চট্টগ্রাম আঞ্চলিক পরিষদ সদস্য ¯েœহ কুমার চাকমা ও জেলার সংশ্লিষ্ট সরকারি বেসরকারী উন্নয়ন সংস্থার কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।
পাহাড়ের সাধারণ মানুষের ভাগ্য উন্নয়নে বেসরকারী উন্নয়ন সংস্থা গুলোর ভুমিকা প্রশংসনীয় বলে মন্তব্য করে তিনি আরো বলেন, বিদেশী দাতা সংস্থা‘সহ সরকারী ও বেসরকারী উন্নয়ন প্রতিষ্ঠানগুলো সমন্বয় রেখে একসাথে কাজ করলে এ জেলার মানুষের অর্থনৈতিক স্বচ্ছলতা বাড়বে। এতে মানুষের কল্যাণ সাধিত হবে।
সভায় আঞ্চলিক পরিষদের সদস্য ¯েœহ কুমার চাকমা বলেন, সরকারী বিধি মোতাবেক এনজিওদের নীতিমালা অনুসরণ করা উচিত, তা না হলে পার্বত্য চট্টগ্রামের সাধারণ মানুষের উন্নয়ন করা কখনো সম্ভব হবেনা। নীতিমালা অনুসরণ না করে যেসব এনজিও এখানে কাজ করছে তাদের মধ্যে কোন স্বচ্ছতা নেই। তিনি দেশী-বিদেশী যেসব দাতা সংস্থা রয়েছে তাদের স্থানীয় এনজিওদের সমন্বয়ে কাজ করার আহ্বান জানান।

Micro Web Technology

আরো দেখুন

ফুটবলের বিকাশে আসছে ডায়নামিক একাডেমি

পার্বত্য এলাকা রাঙামাটিতে ফুটবলকে আরও জনপ্রিয় করে তোলা, তৃনমূল পর্যায় থেকে ক্ষুদে ফুটবল খেলোয়াড় খুঁজে …

Leave a Reply