নীড় পাতা » পাহাড়ের সংবাদ » সমালোচিত সেই ডাক্তারের বিরুদ্ধে এবার সাংবাদিকের মামলা

সমালোচিত সেই ডাক্তারের বিরুদ্ধে এবার সাংবাদিকের মামলা

Dr.-Niharপেশাগত দায়িত্ব পালনকালে সাংবাদিকদের সাথে দুর্ব্যবহার,হুমকি প্রদান ও কটুক্তি করার ঘটনায় রাঙামাটি সদর হাসপাতালে কর্মরত গাইনী চিকিৎসক ও সিজার অপারেশন এর কারণে ব্যাপক সমালোচিত ডাঃ নীহার রঞ্জন নন্দীর বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছেন বেসরকারি টেলিভিশন আরটিভি’র রাঙামাটি প্রতিনিধি ইয়াছিন রানা সোহেল। মামলার আর্জিতে ঘটনার সময় উপস্থিত আরো ছয়জন সাংবাদিককে সাক্ষী করা হয়েছে।

বুধবার রাঙামাটির জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আইরিন পারভীন এর আদালতে মামলাটি দায়ের করা হলে আদালত অভিযোগ তদন্ত করে আগামী ২৩ মার্চ তারিখের মধ্যে প্রতিবেদন দেয়ার জন্য রাঙামাটির কোতয়ালি থানা পুলিশকে আদেশ দেন। পিটিশন মামলা নাম্বার-৩২১৪।

গত রবিবার দুপুর দেড়টায় পেশাগত দায়িত্ব পালনের অংশ হিসেবে কয়েকজন টেলিভিশন ও পত্রিকার সাংবাদিক শহরের বেসরকারি চিকিৎসালয় লেকসাইট হাসপাতালে গেলে সেখানে হাসপাতাল চলাকালিন সময়ে রাঙামাটি সদর হাসপাতালের চিকিৎসক নিহার রঞ্জন নন্দীকে একজন রোগিকে সিজার অপারেশন করতে দেখেন। ডাক্তার অপারেশন শেষে ওটি থেকে বের হওয়ার পর সাংবাদিকরা তার কাছে সরকারি হাসপাতালের দায়িত্ব ফেলে বেসরকারি ক্লিনিকে অফিস চলাকালিন সিজার অপারেশন করার বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি ক্ষুদ্ধ হয়ে উঠেন এবং সাংবাদিকদের সাথে দুর্ব্যবহার করেন এবং দেখে নেয়ার হুমকি দেন। একই সময় তিনি সাংবাদিকদের চাঁদাবাজি মামলায় জড়ানোর হুমকি দিয়ে তাদের মাইক্রোফোন ও ক্যামেরা কেড়ে নেয়ার অপচেষ্টা চালান। এই ঘটনার পর ওইদিনই রাঙামাটির কোতয়ালি থানায় একটি সাধারন ডায়নি করেন সংশ্লিষ্ট সাংবাদিকরা।
ঘটনার প্রতিবাদ জানিয়ে দোষী ব্যক্তির শাস্তি ও অপসারণের দাবি জানায় রাঙামাটি প্রেসক্লাব,রাঙামাটি রিপোর্টার্স ইউনিটিসহ রাঙামাটির কয়েকটি সাংবাদিক সংগঠন।

এদিকে ডাঃ নীহার রঞ্জন নন্দীর বিরুদ্ধে দায়িত্বে অবহেলা ও গাফিলতি করে নবজাত শিশু সন্তান হত্যার অভিযোগ এনে তার বিরুদ্ধে তদন্ত ও বিচার দাবি করে বুধবার রাঙামাটির সিভিল সার্জন বরাবরে আবেদন করেছেন শহরের তবলছড়ি অফিসার্স কলোনি এলাকার বাসিন্দা মোঃ সোহাগ। তিনি অভিযোগ করেন,গত ১৩ ফেব্রুয়ারি রাতে ডাঃ নীহারের নিয়মিত চিকিৎসায় থাকা তার গর্ভবতী ছোটবোন ফাতেমা আক্তারের প্রসব বেদনা উঠলে বারবার ফোন করেও ডাঃ নীহারের সাড়া পাওয়া যায়নি এবং তিনি চট্টগ্রামে অবস্থান করছেণ জানিয়ে রোগি দেখতে আসেননি। ফলে রাতে অনভিজ্ঞ নার্সদের তত্ত্বাবধানে রোগির প্রসব ঘটানো হলে শিশুটির মৃত্যু ঘটে। তিনি ঘটনার জন্য ডাঃ নীহারের দায়িত্বহীনতাকে দায়ি করে সিভিল সার্জনকে ডাঃ নীহারের বিরুদ্ধে বিভাগীয় পদক্ষেপ নেয়ার আবেদন করেছেন। নালিশের অনুলিপি স্বাস্থ্যমন্ত্রীসহ স্বাস্থ্য বিভাগের বিভিন্ন দপ্তরের দায়িত্বশীলদের কাছেও পাঠানো হয়েছে বলে জানান তিনি।
প্রসঙ্গত,একই ডাক্তারের বিরুদ্ধে এর আগেও শহরের বেশ কয়েকজন অভিভাবক দায়িত্বহীনতা,কর্তব্যে অবহেলা,সিজার করতে বাধ্য করাসহ নানা অভিযোগ করলেও অজ্ঞাত কারণে উক্ত চিকিৎসকের বিরুদ্ধে কোন ব্যবস্থাই নেয়নি স্বাস্থ্য বিভাগ।

Micro Web Technology

আরো দেখুন

বেইলি সেতু ভেঙে রাঙামাটি-বান্দরবান সড়ক যোগাযোগ বন্ধ

রাঙামাটির রাজস্থলী উপজেলায় রাঙামাটি-বান্দরবান প্রধান সড়কের সিনামা হল এলাকার বেইলি সেতু ভেঙে পাথর বোঝাই ট্রাক …

২ comments

  1. সমালোচিত এই অনভিজ্ঞ ডাক্তারের হাতে অপারেশনের সময় এর আগেও বহু গর্ভবতী মা ও শিশুর মৃত্যু হয়। তাছাড়া রাঙ্গামাটি সদর হাসপাতালে কর্মরত সিনিয়র স্টাফ নার্স কালিন্দীপুর নিবাসী সুভদ্রা তনচংগ্যার সাথে তার অবৈধ শারিরীক সম্পর্ক রয়েছে। হাসপাতালে ডিউটি করার ফাকে তার রুমে উক্ত নার্সের সাথে বিবস্ত্র অবস্থায় মেলামেশা করতে দেখেছেন হাসপাতালের অনেক ৪র্থ শ্রেণীর কর্মচারী। ট্রেনিং এর নামে উক্ত নার্সের সাথে তার ঢাকা- চট্টগ্রামসহ বিভিন্ন জায়গায় একসাথে রাত কাটানোরও খবর পাওয়া যায় বহুবার। উক্ত অবৈধ সম্পর্কের কথা প্রায় সকল ডাক্তার, নার্স ও কর্মচারীরা অবগত। এমতাবস্থায় তার বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ সহ অন্যত্র বদলী করার জন্য সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের নিকট জোর দাবী জানানো হলো।

Leave a Reply

%d bloggers like this: