নীড় পাতা » পৌরসভা নির্বাচন ২০১৫ » লামার নতুন মেয়র আওয়ামীলীগের জহির

লামার নতুন মেয়র আওয়ামীলীগের জহির

Lama-Mayor-Photo,-30-Dec'15লামা পৌরসভা নির্বাচনে মেয়র নির্বাচিত হয়েছেন আওয়ামী লীগ সমর্থিত প্রার্থী মো. জহিরুল ইসলাম। তিনি ৬ হাজার ৬০৬ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হন। রিটানিং অফিসার ও বান্দরবান জেলা নির্বাচন অফিসার মোহাম্মদ শফিকুর রহমান রাত সাড়ে ৮টার দিকে বেসরকারিভাবে নির্বাচনের ফলাফল ঘোষণা করেন। এ সময় সহকারী ঘোষিত ফলাফলে আওয়ামী লীগ সমর্থিত প্রার্থী মো. জহিরুল ইসলাম নৌকা প্রতীকে ৬ হাজার ৬০৬ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হন। তার নিকটতম বিএনপি সমর্থিত প্রার্থী মো. আমির হোসেন ধানের শীষ প্রতীকে ভোট পায় ২ হাজার ৮৩৫ভোট এবং জাতীয় পার্টি-জেপি সমর্থিত প্রার্থী মো. ফরিদ উদ্দিন বাই সাইকেল প্রতীকে পেয়েছেন ৩২ ভোট। ১১ হাজার ৪৪৯ ভোটারের মধ্যে ৯ হাজার ৫৩২ ভোটার তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করেন। তম্মধ্যে সর্বমোট ৫৯টি ভোট নষ্ট হয়।

সংরক্ষিত ১নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর পদে নির্বাচিত হন- সাকেরা বেগম (প্রতীক- মৌমাছি), ২নং ওয়ার্ডে জোসনা বেগম (প্রতীক- ব্যানিটি ব্যাগ) ও ৩নং ওয়ার্ডে জাহানারা বেগম (প্রতীক- কাঁচি)। সাধারন কাউন্সিলর পদে ১নং ওয়ার্ডে মো. ফরিদ উদ্দিন (প্রতীক- ঢেড়শ), ২নং ওয়ার্ডে মো. হোসেন বাদশা (প্রতীক- ডালিম), ৩নং ওয়ার্ডে মো. সাইফুদ্দিন (প্রতীক- টেবিল ল্যাম্প), ৪নং ওয়ার্ডে মো. রফিক (প্রতীক- উট পাখি), ৫নং ওয়ার্ডে আবু সালাম (প্রতীক- উট পাখি), ৬নং ওয়ার্ডে মো. জাকের হোসেন (প্রতীক- টেবিল ল্যাম্প), ৭নং ওয়ার্ডে মো. কামাল উদ্দিন (প্রতীক- টেবিল ল্যাম্প), ৮নং ওয়ার্ডে মো. ইউছুফ আলী (প্রতীক- ডালিম) এবং ৯নং ওয়ার্ডে হাবিল মিয়া (প্রতীক- ডালিম) নির্বাচিত হয়েছেন।

ভোট চলাকালীন সময় সরেজমিন শীলেরতুয়া মার্মা পাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে কেন্দ্রে গিয়ে দেখা যায়, হিমেল শীতের ঠান্ডা বাতাস উপেক্ষা করে নারী-পুরুষ ভোটারদের দীর্ঘ লাইনে দাঁড়িয়ে ভোটাররা। এ সময় উৎসবমুখর পরিবেশে ভোটারদের ভোটকেন্দ্রে ভিড় জমাতে দেখা যায়। আওয়ামীলীগ সমর্থিত প্রার্থী মো. জহিরুল ইসলাম ও জাতীয় পার্টি-জেপি সমর্থিত প্রার্থী মো. ফরিদ উদ্দিন সকাল ৯টার দিকে রাজবাড়ী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে এবং বিএনপি সমর্থিত প্রার্থী মো. আমির হোসেন চেয়ারম্যান পাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে ভোট প্রদান করেন। চেয়ারম্যান পাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রের ৩নং কক্ষের প্রথম ভোটার বাদশা মেস্ত্রী বলেন, শান্তিপূর্ণভাবে ভোট দিতে পেরে ভালো লেগেছে।

রাজবাড়ী সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রের প্রিজাইডিং অফিসার মাহবুবুুর রহমান বলেন, নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে শান্তিপূর্ণভাবে শতভাগ ভোটার তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করেছেন। কোন ধরনে অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটেনি।
নির্বাচন অফিস থেকে পাওয়া তথ্যমতে, লামা পৌরসভায় মোট ভোটার ১১ হাজার ৪৪৯ জন। এর মধ্যে পুরুষ ৬ হাজার ৩০ জন এবং মহিলা ৫ হাজার ৪১৯ জন। এই পৌরসভায় মেয়র প্রার্থী ৩জন, সাধারন কাউন্সিলর প্রার্থী ২৯জন এবং সংরক্ষিত পদে ১৩ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্ধিতা করেন।

প্রসঙ্গত, গত ২০০৩ সালের ২ এপ্রিল অনুষ্ঠিত লামা পৌরসভা নির্বাচনে প্রথম পৌর মেয়র নির্বাচিত হন উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মোহাম্মদ ইসমাইল। ২০১১ সালের ১৮ জানুয়ারি নির্বাচনে বিএনপির সমর্থন নিয়ে দোয়াত কলম প্রতীকে ৪ হাজার ৭৭২ ভোট পেয়ে মেয়র নির্বাচিত হন বর্তমান মেয়র মো. আমির হোসেন। তাঁর নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী আওয়ামী লীগ প্রার্থী মো. জহিরুল ইসলাম দেয়াল ঘড়ি প্রতীকে পেয়েছিলেন ৩ হাজার ২২১ ভোট।
লামা পৌরসভা নির্বাচনের রিটার্নিং অফিসার মোহাম্মদ শফিকুর রহমান নির্বাচনের ফলাফল ঘোষণার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, শান্তিপূর্ণভাবে লামা পৌরসভায় ভোটগ্রহণ সম্পন্ন হয়েছে। ভোটাররা উৎসবমুখর পরিবেশে ভোট কেন্দ্রে গিয়ে ভোট দিয়েছেন। কোনও প্রকার অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটেনি। নির্বাচনে বেসরকারিভাবে মো. জহিরুল ইসলাম মেয়র নির্বাচিত হয়েছেন।

Micro Web Technology

আরো দেখুন

স্বাস্থ্য বিভাগকে সুরক্ষা সামগ্রী দিলো রাঙামাটি রেড ক্রিসেন্ট

নভেল করোনাভাইরাসের (কভিড-১৯) সংক্রমণ প্রতিরোধ ও নিয়ন্ত্রণে রাঙামাটির ১২টি সরকারি হাসপাতাল ও স্বাস্থ্য কেন্দ্রসমূহে স্বাস্থ্য …

Leave a Reply