নীড় পাতা » খাগড়াছড়ি » মহালছড়িতে যুব ফোরাম ও পিসিপি’র বিক্ষোভ

মহালছড়িতে যুব ফোরাম ও পিসিপি’র বিক্ষোভ

Mahalchari-Pcp-news-26-08-2খাগড়াছড়ি’র মহালছড়িতে ইউপিডিএফ সমর্থিত পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ ও গণতান্ত্রিক যুব ফোরাম এর যৌথ উদ্যেগে ২৬ আগষ্ট মঙ্গলবার দুপুর ১২টায় মহালছড়ি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে ২০০৩ সালের ২৬ আগষ্ট সংঘটিত সাম্প্রদায়িক দাঙ্গায় অগ্নি সংযোগ, লুটপাট স্মরনে এক বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে।
গণতান্ত্রিক যুব ফোরাম মহালছড়ি উপজেলা শাখার সাংগঠনিক সম্পাদক নিদর্শন খীসার উপস্থাপনায় গণতান্ত্রিক যুব ফোরাম মহালছড়ি উপজেলা শাখার সভাপতি পলাশ চাকমার সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন- গণতান্ত্রিক যুবফোরাম কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ন সাধারণ সম্পাদক সর্বানন্দ চাকমা, হিল উইমেন্স ফেডারেশন খাগড়াছড়ি জেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক শিখা চাকমা, সাংগঠনিক সম্পাদক রিনা দেওয়ান, পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ খাগড়াছড়ি জেলা শাখার সভাপতি বিপুল চাকমা, মহালছড়ি সদর ইউনিয়ন এর সংরক্ষিত আসনের ইউপি সদস্যা যবনিকা দেওয়ান প্রমূখ।

বিক্ষোভ সমাবেশে বক্তারা অভিযোগ করে বলেন, ২০০৩ সালের এই দিনে একদল দুর্বৃত্ত মহালছড়ি উপজেলার বাবু পাড়া সহ ৯টি পাহাড়ি গ্রামে হামলা চালিয়ে সাড়ে তিন শতাধিক ঘরবাড়ি জ্বালিয়ে দেয়া হয়েছে। হামলাকারীরা প্রবীণ মুরুব্বী বিনোদ বিহারী খীসা ও আট মাস বয়সী শিশু কিরিতনকে হত্যা, ৯ জন পাহাড়ি নারীকে ধর্ষণ, ৪টি বৌদ্ধ মন্দির পোড়ানো ও বুদ্ধমূর্তি ভাঙচুর এবং প্রতিটি গ্রামে ব্যাপক লুটপাট চালানো এবং এক বৌদ্ধ ভিক্ষুও লাঞ্ছিত হয়েছেন বলে দাবি করেন বক্তারা ।

বক্তারা আরো বলেন, এ বর্বরোচিত হামলার ১১ বছর পার হলেও হামলাকারীদের বিরুদ্ধে দৃষ্টান্তমূলক কোন ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়নি। যার ফলস্বরূপ দুষ্কৃতিকারীরা পার্বত্য চট্টগ্রামে বার বার এ ধরনের হামলা সংঘটিত করার সাহস পাচ্ছে।
২০০৩ সালের ২৬ আগষ্ট মহালছড়িতে সংঘটিত সাম্প্রদায়িক হামলার সাথে জড়িত ব্যক্তিদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তিসহ পার্বত্য চট্টগ্রামে ভবিষ্যতে এ ধরনের হামলা বন্ধে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণ করার আহবান জানান বক্তারা।

Micro Web Technology

আরো দেখুন

সৌরশক্তি ব্যবহার করে সেচ সুবিধার আওতায় কৃষক

খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলার শুকনো মৌসুমে চাষযোগ্য জমির প্রায় অর্ধেকের মতো খালি পড়ে থাকে সেচের অভাবে। …

Leave a Reply