নীড় পাতা » পাহাড়ের সংবাদ » বিএনপি অফিসে ভাংচুর,দীপেন দেওয়ানের ছবিতে অগ্নিসংযোগ

বিএনপি অফিসে ভাংচুর,দীপেন দেওয়ানের ছবিতে অগ্নিসংযোগ

BNP-Dipen-picরাঙামাটি সদর উপজেলা নির্বাচনে দলীয় প্রার্থীর পরাজয় এবং প্রার্থী ‘পাহাড়ী ভোট’ না পাওয়ার অভিযোগ করে জেলা বিএনপি কার্যালয় ভাংচুর করেছে দলটির বিক্ষুদ্ধ নেতাকর্মীদেও একটি অংশ।
বুধবার রাত আটটার দিকে ছাত্রদল,যুবদলের একদল কর্মী বিএনপি কার্যালয়ে ঢুকে ব্যাপক ভাংচুর চালায়। এসময় উত্তেজিত নেতাকর্মীরা জেলা বিএনপির সভাপতি দীপেন দেওয়ানের ছবিতে অগ্নিসংযোগ করে এবং তার বিরুদ্ধে শ্লোগান দেয়। এসময় উত্তেজিত কর্মীরা দীপেন দেওয়ানকে ‘জেএসএস’র এজেন্ট’ বলে অভিযুক্ত করে তাকে দলীয় কার্যালয়ে ‘অবাঞ্চিত’ ঘোষণা করে। এসময় তারা জেলা বিএনপি কার্যালয়েও তালা মেরে দেয়। ক্ষুদ্ধ কর্মীরা ভোট সংগ্রহে ব্যর্থ নেতাদের পদত্যাগও দাবি করে।

এর আগে সন্ধ্যায় সদর থানা বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক মোঃ শফিকুল ইসলাম ও বিএনপির পরাজিত ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী জাহিদুল ইসলাম জাহিদ এর মধ্যে হাতাহাতির ঘটনা ঘটে। নির্বাচনে পরাজয় নিয়ে বাতবিতন্ডার জের ধরে এই ঘটনা ঘটে বলে জানিয়েছে প্রত্যক্ষদর্শীরা।BNp-dipen-fire

রাঙামাটি জেলা বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক এডভোকেট সাইফুল ইসলাম পনির জানিয়েছেন,নির্বাচনে দলীয় প্রার্থীর পরাজয়ের কারণে ক্ষুদ্ধ কর্মীরা দলীয় কার্যালয়ে চেয়ার টেবিল ভাংচুর ও সভাপতি দীপেন দেওয়ানের ছবি ও ব্যানার পুড়িয়েছে বলে জেনেছি। কর্মীদের অভিযোগ ‘নব্য বিএনপি’র নেতারা উপজেলা নির্বাচনে দলীয় প্রার্থীর জন্য কোন ভোট সংগ্রহ করতে না পারায় কর্মীরা ক্ষোভের বহি:প্রকাশ ঘটিয়েছে হয়তো।

রাঙামাটি জেলা বিএনপির সাধারন সম্পাদক মো: শাহ আলম জানিয়েছেন, দলীয় কার্যালয়ে ভাংচুরের খবর পেয়েছি,আমি ব্যক্তিগত কাজে চট্টগ্রাম যাচ্ছি,ফলে বিস্তারিত জানতে পারছিনা। সম্ভবত: নির্বাচনে পরাজয়ের কারণে কিছু একটা হয়েছে।

রাঙামাটির কোতয়ালি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সোহেল ইমতিয়াজ জানিয়েছেন, বিএনপি অফিসে ঝামেলার বিষয়টি জেনে পুলিশ সেখানে গেছে,কিন্তু পুলিশ যাওয়ার আগেই ঝামেলা শেষ হয়ে গেছে। সেখানে এর আগে কি হয়েছে আমি জানিনা।

Micro Web Technology

আরো দেখুন

রাঙামাটিতে করোনায় আরও এক নারীর মৃত্যু

রাঙামাটি শহরে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে আরও এক নারীর মৃত্যু হয়েছে। সোমবার ভোররাতে শহরের চম্পকনগর আইসোলেশন …

Leave a Reply