নীড় পাতা » পাহাড়ের সংবাদ » বাঘাইছড়ি পৌর মেয়র ও সাবেক উপজেলা নির্বাহী অফিসারের বিরুদ্ধে দুদক’র মামলা

বাঘাইছড়ি পৌর মেয়র ও সাবেক উপজেলা নির্বাহী অফিসারের বিরুদ্ধে দুদক’র মামলা

baghaichhariসরকারি তহবিল তছরূপ এবং পৌরসভার বরাদ্দ আত্মসাতের অভিযোগে রাঙামাটির বাঘাইছড়ি পৌরসভার মেয়র আলমগীর কবির ও বাঘাইছড়ির সাবেক উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ সাজেদুল হকসহ চারজনকে আসামী করে মামলা করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন। মামলায় বাকী দুই আসামী হলেন বাঘাইছড়ি উপজেলার সড়ক ও জনপদ বিভাগের সাবেক উপ সহকারী প্রকৌশলী দীপন চাকমা ও ঠিকাদার সুজল কান্তি চাকমা।
দুর্নীতি দমন কমিশনের উপ পরিচালক মোঃ মীর হোসেন বাদী হয়ে বাঘাইছড়ি থানায় বুধবার মামলাটি দায়ের করেন।

মামলার বিবরণীতে অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে পৌরসভার তহবিল অপব্যবহার ও সরকারি তহলি তছরুপ করার অভিযোগ আনা হয়েছে।

অভিযোগে জানা গেছে, বাঘাইছড়ি পৌর এলাকার ফরেস্ট অফিস নামের একটি স্থানে সীমানা প্রাচীর নির্মানের কথা বলে ৫ লক্ষ ১৭ হাজার টাকা খরচ করা হলেও বাস্তবে সীমানা প্রাচীর নির্মান করা হয়নি। তদন্ত শেষে দুদক এই মামলা করেছে বলে জানিয়েছেন বাঘাইছড়ি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা রফিকউল্লাহ।

বাঘাইছড়ি পৌরসভার মেয়র আলমগীর কবির মামলা দায়েরের কথা স্বীকার করে বলেছেন,বাঘাইছড়ি পৌরসভার একটি জায়গা নিয়ে জনৈক আব্দুস শুক্কুর ও আব্দুস শহীদ নামের দুইভায়ের সাথে পৌরসভার প্রায় ১৬ বছর ধরে মামলা চলছিলো। আমি দায়িত্ব নেয়ার পর ২০১১ সালে তাদের কাছ থেকে পৌরসভার স্বার্থেই জায়গাটি ক্রয় করি। এই ক্রয় করার কাজে পৌরসভার নিজস্ব তহবিলের ৫ লক্ষ টাকা ও সীমানা প্রাচীর নির্মানের ৪ লক্ষ টাকাসহ মোট ৯ লক্ষ টাকা দিয়ে জায়গাটি খরিদ করা হয়। এই বিষয়ে দুদকের অনুসন্ধানের সময়ও আমি তাদের জানিয়েছি। তারপরও কেনো মামলা করা হলো বুছতে পারছিনা।

বাঘাইছড়ি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা রফিকউল্লাহ জানিয়েছেন,তদন্ত শেষে মামলা করেছে দুদক,এখন মামলা নিজস্ব গতিতে চলবে। দুদকের পাশাপাশি পুলিশী তদন্তও চলবে বলে জানান তিনি। মামলার আসামীদের মধ্যে পৌর মেয়র ছাড়াও বাকী যাদের আসামী করা হয়েছে তাদের মধ্যে সাবেক উপজেলা নির্বাহী অফিসার সাজেদুল হক এখানে নেই,সহকারী প্রকৌশলী দীপন চাকমা এখন মানসিক ভারসাম্যহীন এবং আরেকজন সংশ্লিষ্ট ঠিকাদার সুজল কান্তি চাকমা। তদন্তের স্বার্থে তদন্তকারি কমকর্তা এদের গ্রেফতারও করতে পারেন, আবার গ্রেফতার না করে শুধু জিজ্ঞাসাবাদও করতে পারেন বলে জানান তিনি।

Micro Web Technology

আরো দেখুন

পুলিশের জালে ধরা পড়ল সেই মাঈন উদ্দিন

রাঙামাটির কাপ্তাই উপজেলার নতুনবাজার ঢাকাইয়া কলোনির সেই মাঈন উদ্দিন (৪৫) আবারো কাপ্তাই থানা পুলিশের হাতে …

Leave a Reply