নীড় পাতা » ব্রেকিং » ফাঁসাতে গিয়ে ফেঁসে গেলেন ঝর্ণা !

বৃদ্ধ ভাসুরকে

ফাঁসাতে গিয়ে ফেঁসে গেলেন ঝর্ণা !

dav

রাঙামাটি জেলা শহরের দক্ষিণ-কালিন্দীপুরের বাসিন্দা ঝর্ণা করকে (৪৫) মিথ্যা মামলার দায়ের দণ্ডিত করেছেন আদালত। এ অপরাধে আদালত মামলার বাদী ঝর্ণা করের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করে। রোববার রাঙামাটি চিফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট এএনএম মোরশেদ খানের আদালতে এ দণ্ড দেয়া হয়।

রাঙামাটি চিফ জুডিসিয়াল আদালতের বেঞ্চ সহকারী মো. মনজুরুল ইসলাম জানান, ২০১৫ সালের ২৯ জুলাই কোতয়ালী থানায় ঝর্ণা কর বাদী হয়ে তার আপন ভাসুর নেপাল কর (৭৫) ও ভাসুরের পুত্র তন্ময় কর (৩৫) ও চিত্ময় কর (২৮) এর বিরুদ্ধে শ্লীলতাহানিসহ মারধরের মিথ্যা মামলা দায়ের করেন। তদন্ত করে ৩ জনকে অভিযুক্ত করে পুলিশ আদালতে চার্জশিট দাখিল করেন। ২০১৫ সালে ৩ নভেম্বর চার্জশিট দাখিলের পর ২০১৬ সালের ২৭ জুন আসামিদের বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করে বিচার শুরু করেন। গত ২০১৯ সালের ২৩ ডিসেম্বর মামলার রায়ে আসামিদের খালাস দেওয়া হয়। সাক্ষীদের সাক্ষ্যে মামলাটি মিথ্যা প্রমাণিত হওয়ায় রায় ঘোষণার দিনেই বাদীকে আদালত শোকজ করেন। কেন মিথ্যা মামলা দায়ের করেছেন তার ব্যাখ্যা দিতে নির্দেশ দেন।

তিনি আরও বলেন, বাদীর প্রতি ইস্যুকৃত কারণ দর্শানোর নোটিশ জারি হওয়া সত্বেও আদালতে হাজির না হওয়া এবং নোটিশের কোনো ব্যাখ্যা প্রদান না করায় মিথ্যা মামলা দায়ের করায় বাদী ঝর্ণা করকে ১৮৯৮ সালের ফৌজদারী কার্যবিধির ২৫০ (২) (৫) ধারায় ০৭ (সাত) দিনের বিনাশ্রম কারাদ- ও ১ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরও ৭ দিনের বিনাশ্রম কারাদণ্ডের রায় দেন।

Micro Web Technology

আরো দেখুন

জুরাছড়িতে গুলিতে নিহত কার্বারির ময়নাতদন্ত সম্পন্ন

রাঙামাটির জুরাছড়ি উপজেলায় স্থানীয় এক কার্বারিকে (গ্রামপ্রধান) গুলি করে হত্যা করেছে অজ্ঞাত বন্দুকধারী সন্ত্রাসীরা। রোববার …

Leave a Reply