নীড় পাতা » ব্রেকিং » পাহাড়ে জনসংহতি’র অফিস বর্জন কর্মসূচী আজ

পাহাড়ে জনসংহতি’র অফিস বর্জন কর্মসূচী আজ

JSS flag coverপার্বত্য শান্তিচুক্তি পূর্ণ বাস্তবায়নের দাবিতে আজ বুধবার পার্বত্য জেলা রাঙামাটিসহ তিন পার্বত্য জেলায় অফিস আদালত ব্যাংক বীমা বর্জন কর্মসূচী পালনের আহ্বান জানিয়েছে সন্তু লারমার নেতৃত্বাধীন পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতি।

সংগঠনটির পক্ষ থেকে পার্বত্য চুক্তি বাস্তবায়নের দাবিতে ধারাবাহিক অসহযোগ আন্দোলনের অংশ হিসেবে এই কর্মসূচী পালন করা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন সংগঠনটির মুখপাত্র সজীব চাকমা।

এর আগে একই দাবিতে হাটবাজার বর্জন,স্কুল কলেজে ছাত্রধর্মঘট কর্মসূচী পালন করেছিলো সংগঠনটি। তারই ধারাবাহিকতায় এবার তিন পার্বত্য জেলায় সকল প্রকার অফিস আদালত ব্যাংক বীমাসহ সকল প্রতিষ্ঠানে যাওয়া থেকে বিরত থাকার জন্য সবাইকে আহ্বান জানিয়েছে তারা।

চুক্তি যথাযথ ও পরিপূর্ণভাবে বাস্তবায়ন না হলো আরো কঠোর কর্মসূচী পালনের হুমকি দিয়ে আসছে ১৯৯৭ সালের ২ ডিসেম্বর তৎকালীন আওয়ামীলীগ সরকারের সাথে শান্তিচুক্তির মাধ্যমে ২৪ বছরের সশস্ত্র সংঘাতের অবসান ঘটিয়ে স্বাভাবিক জীবনে ফিরে আসা গেরিলা সংগঠন ‘শান্তিবাহিনীর’ রাজনৈতিক সংগঠন পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতি,যা নেতৃত্ব দিচ্ছেন জ্যোতিরিন্দ্র বোধিপ্রিয় লারমা (সন্তু)।

প্রসঙ্গত, সন্তু লারমার জনসংহতি সমিতি ছাড়াও পাহাড়ে পূর্ণ স্বায়ত্ত্বশাসনের দাবিতে ইউপিডিএফ নামের আরেকটি বৃহৎ আঞ্চলিক রাজনৈতিক দল এবং সন্তু লারমার সংগঠন থেকে বেরিয়ে গিয়ে ভিন্ন মতাবলম্বী আরেকটি অংশ পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতি(এমএনলারমা) নামে আরেকটি সংগঠন রাজনৈতিক কার্যক্রম চালাচ্ছেন। তিনটি রাজনৈতিক দলই পাহাড়ীদের অধিকার আদায়ে কাজ করছে বলে জানালেও,তাদের মধ্যে রয়েছে বৈরিতাপূর্ণ সম্পর্ক। ফলে এই তিনটি দলের সশস্ত্র লড়াইয়ে গত ১৮ বছরে নিহত হয়েছে অন্তত: একহাজার পাহাড়ী,যাদের প্রায় সবাই এই তিনটি দলের নেতাকর্মী বা সমর্থক।

১৯৯৭ সালে সম্পাদিত পার্বত্য চট্টগ্রাম চুক্তি,যা শান্তিচুক্তি নামেই বেশি পরিচিত,তার বেশির ভাগ ধারাই বাস্তবায়িত হয়েছে বলে দাবি করে থাকে ক্ষমতাসীন দল আওয়ামীলীগ। অন্যদিকে চুক্তির মৌলিক ধারাগুলোর কোনটিই বাস্তবায়ন হয়নি দাবি করে আসছে সন্তু লারমার নেতৃত্বাধীন জনসংহতি সমিতি। সরকারের দাবি চুক্তির প্রায় ৬৮ শতাংশ বাস্তবায়ন হয়েছে, কিছু বাস্তবায়নাধীন আছে আর কিছু জনসংহতি সমিতির অসহযোগিতার কারণে বাস্তবায়িত হচ্ছেনা। আর জনসংহতি সমিতি বলে থাকে, সরকার ‍চুক্তির ‘যথাযথ’ বাস্তবায়নে আন্তরিক নয়।

Micro Web Technology

আরো দেখুন

বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য নির্মাণে বিরোধীতার প্রতিবাদ রাঙামাটিতে

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ভাস্কর্য নির্মাণে বিরোধীতার নামে ‘উগ্রমৌলবাদ ও ধর্মান্ধগোষ্ঠীর জনমনে বিভ্রান্তির …

Leave a Reply