নীড় পাতা » বান্দরবান » নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলা চেয়ারম্যান তোফাইল আটক

নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলা চেয়ারম্যান তোফাইল আটক

Bandarban-Tofaile-PiCবান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলা চেয়ারম্যান জামায়াত নেতা তোফাইল আহমদ’কে আটক করা হয়েছে। সোমবার দিবাগতরাতে রাজধানী ঢাকার শেরেবাংলা নগরস্থ সুন্দরবন হোটেল থেকে পুলিশের নব গঠিত বিশেষায়িত ইউনিট পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেষ্টিগেশন (পিবিআই) ও সাইবার সিকিউরিটি ইনন্টেলিজেন্সের সদস্যরা যৌথ অভিযানে তাঁকে আটক করে।

পরিবার সূত্রে জানাগেছে, বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব অব ম্যানেজমেন্ট (বিআইএম) বিআইএমতে স্থানীয় সরকার বিভাগের বাস্তবায়নাধীন উপজেলা গর্ভন্যান্স প্রজেক্ট কর্তৃৃক আয়োজিত ‘‘উপজেলা পরিষদ আইন ও প্রশাসন শীর্ষক’’ মৌলিক (রিফ্রেশার্স) প্রশিক্ষণে অংশ নিতে ঢাকায় গিয়েছিলেন নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলা চেয়ারম্যান তোফাইল আহমদ। গত শনি ও রবিবার দুদিন তিনি প্রশিক্ষণ শেষে সোমবার হোটেল রুমে অবস্থানকালে রাত আড়াইটার দিকে সুন্দরবন হোটেলের ৪১৮ নম্বর রুম থেকে পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেষ্টিগেশন (পিবিআই) সদস্যরা তোফাইল আহমদ’কে আটক করে নিয়ে যায়। ঘটনার সময় ঐ হোটেলের পাশের রুমে অবস্থানরত বান্দরবানের আলীকদম উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মোহাম্মদ আবুল কালাম আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যদের কাছ থেকে আটকের বিষয়টি জানতে চাইলে তারা জিজ্ঞাসাবাদের জন্য নিয়ে যাওয়া হচ্ছে বলে জানিয়েছেন। আটককৃত তোফাইল আলীকদম উপজেলা চেয়ারম্যানকে তাকে (তোফাইল’কে) আইনশৃঙ্খলা বাহিনী আটকের খবরটি স্ত্রী এবং স্থানীয় সংসদ সদস্যকে জানাতে অনুরোধ করেছিলেন।

চেয়ারম্যান তোফাইলের স্ত্রী মনোয়ারা আক্তার জেসমিন জানান, তারঁ স্বামীর বিরুদ্ধে দায়ের করা রামু বৌদ্ধ মন্দিরে হামলার ঘটনার মামলা’সহ সবকটি মামলায় জামিনে রয়েছেন। এছাড়াও তোফাইলকে গ্রেফতার ও হয়রানি না করার জন্য উচ্চ আদালতের একটি নির্দেশনাও রয়েছে। কিন্তু সরকারী প্রশিক্ষণে অংশগ্রহণে ঢাকায় গিয়েছিলেন, সেখানে কেন তার স্বামীকে আটক করা হয়েছে বিষয়টির তার জানা নেই।

তিনি আরো বলেন, আইনশৃঙ্খলা বাহিনী পিবিআই সদস্যরা ২০১৫ সালের ২৪ অক্টোবর রাতে নাইক্ষ্যংছড়িস্থ তোফাইল আহামদের ভাড়া বাসায় তল্লাসী চালিয়ে একটি ল্যাপটপ ও মোবাইল ফোন জব্দ করেছিল।
হোটেল সুন্দরবনের সিনিয়র কর্মকর্তা ফরহাদ হোসেন বলেন, পিবিআই পরিচয় নিশ্চিত হয়ে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী’কে অভিযানে সহযোগিতা করা হয়েছে। হোটেলের ৪১৮নম্বর রুম থেকে চেয়ারম্যান তোফাইল আহমদ কে আটক করে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী নিয়ে যান।

নাইক্ষ্যংছড়ি থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো: আবুল খায়ের জানান, রাজধানীর সুন্দরবন হোটেল থেকে পুলিশ ব্যুারো অব ইনভেস্টিগেশনের (পিবিআই) সদস্যরা তোফায়েল আহমেদ’কে আটক করেছে। চেয়ারম্যান বর্তমানে পিবিআই সদর দপ্তরে রছেন।

প্রসঙ্গত: নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলা চেয়ারম্যান তোফাইল আহমদ এর বিরুদ্ধে ফৌজদারী মামলা জি.আর-৩৯/১২ নম্বর মামলায় দাখিলকৃত অভিযোগপত্র বিজ্ঞ আদালতে গৃহিত হওয়ায় ১ অক্টোবর স্থানীয় সরকার পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়ের স্থানীয় সরকার বিভাগের উপজেলা-২ শাখা থেকে তোফাইল আহামদ’কে সাময়িক বহিষ্কার করা হয়েছিল। পরে প্রজ্ঞাপনটির আইনগত বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে ১০৪৩৫ নম্বর পিটিশন আবেদনের প্রেক্ষিতে তোফাইল আহামদ হাইকোর্টে রিট মামলা করে গত২৯ নভেম্বর স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়ের আদেশে তাঁর দায়িত্বভার ফিরে পান।

Micro Web Technology

আরো দেখুন

স্বাস্থ্য বিভাগকে সুরক্ষা সামগ্রী দিলো রাঙামাটি রেড ক্রিসেন্ট

নভেল করোনাভাইরাসের (কভিড-১৯) সংক্রমণ প্রতিরোধ ও নিয়ন্ত্রণে রাঙামাটির ১২টি সরকারি হাসপাতাল ও স্বাস্থ্য কেন্দ্রসমূহে স্বাস্থ্য …

Leave a Reply