নীড় পাতা » ব্রেকিং » চাঁদা না দেয়ায় সুপেয় পানির পাইপ লাইন কর্তন !

চাঁদা না দেয়ায় সুপেয় পানির পাইপ লাইন কর্তন !

রাঙামাটির লংগদু উপজেলার ভাসান্যাদম ইউনিয়নের শিলকাটা ছড়া গ্রামে সুপেয় পানি সরবরাহ কাজে দাবিকৃত চাঁদা না দেয়ায় পানির পাইপ লাইন কেটে দেয়া ও জীবননাশের হুমকির প্রতিবাদে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে। বুধবার সকালে শিলকাটাছড়া এলাকাবাসীর ব্যানারে জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের সামনে ঘন্টাব্যাপি এ মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।

মো. নুর হোসেনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন মো. বাবুল মিয়া, পার্বত্য চট্টগ্রাম নাগরিক পরিষদের স্টিয়ারিং কমিটির সদস্য মো. হাবিব আজম, মো. সোলাইমান, মাওলানা আবু বক্কর ছিদ্দিক প্রমুখ।

এসময় বাবুল মিয়া অভিযোগ করেন, গত ৯ ফেব্রুয়ারি ভাসান্যাদম ইউনিয়নের শিলকাটা ছড়া গ্রামে জনস্বাস্থ্য রাঙামাটি জেলা শাখার সুপেয় পানি উন্নয়ন প্রকল্পের কাজের ২ লাখ টাকা দাবিকৃত চাঁদা না দেয়ায় ৩ হাজার ফুট পানির পাইপ লাইন কেটে পানি সরবরাহ বিচ্ছিন্ন করে দেয়। চাঁদা না দিলে রক্তের বন্যা বইবে বলে হুমকিও প্রদান করে সন্ত্রাসীরা।

বক্তারা বলেন, বাংলাদেশ ১৯৭১ সালে স্বাধীন হলেও পার্বত্য এলাকায় বসবাসরত সকল জনগোষ্ঠী এখনো স্বাধীনভাবে চলাফেরা করতে পারছে না। আওয়ামী লীগ সরকার পাহাড়ের শান্তির জন্য চুক্তি করলেও এখনো পাহাড়ে অবৈধ অস্ত্রের ব্যবহার হচ্ছে। এই অবৈধ অস্ত্রের কাছে শুধু বাঙারিরাই না সাধারণ পাহাড়িরাও জিম্মি। তারা আরও বলেন, গত কয়েকদিন ধরে পাহাড়ের সন্ত্রাসীগোষ্ঠীরা শান্ত পাহাড়কে আবারও অশান্ত করার পয়তারা করতেছে। তাই প্রশাসনকে এসব বিষয়ে আরও নজরদারি বাড়ানোর আহ্বান জানান তারা।

এসব ঘটনার জন্য পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতি (সন্তু লারমা) সংগঠনকে দায়ি করছে এলাকাবাসী। এবং দ্রুততম সময়ের মধ্যে সন্ত্রাসীদের গ্রেফতার করে আইনের আওয়তায় এনে শাস্তির দাবিসহ ক্ষতিগ্রস্ত পানির লাইন মেরাতম করে সুপেয় পানির সরবরাহ স্বাভাবিক করার দাবি করা হয়।

Micro Web Technology

আরো দেখুন

বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য নির্মাণে বিরোধীতার প্রতিবাদ রাঙামাটিতে

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ভাস্কর্য নির্মাণে বিরোধীতার নামে ‘উগ্রমৌলবাদ ও ধর্মান্ধগোষ্ঠীর জনমনে বিভ্রান্তির …

Leave a Reply