নীড় পাতা » খাগড়াছড়ি » গ্রেনেড উদ্ধার,দুই পরিবারকে পুড়িয়ে মারার চেষ্টা !

গ্রেনেড উদ্ধার,দুই পরিবারকে পুড়িয়ে মারার চেষ্টা !

dighinala(khargrachari)-picখাগড়াছড়ির দীঘিনালার বাবুছড়ায় মঙ্গলবার রাতে অজ্ঞাত সন্ত্রাসীরা ইউপিডিএফ’র দুই কর্মীর পরিবারকে আগুনে পুড়িয়ে হত্যার চেষ্টা করা হয়েছে। এসময় সন্ত্রাসীরা অর্ধশতাধিক গুলিবর্ষন করে এবং একটি গ্রেনেড নিক্ষেপ করে। পুলিশ ও সেনাবাহিনী ঘটনাস্থল থেকে অবিস্ফোরিত গ্রেনেড,চারটি গুলির খোসা ও একটি তাজা গুলি উদ্ধার করেছে।

পুলিশ ও ঘটনার শিকার পরিবারের সাথে কথা বলে জানা যায়,মঙ্গলবার রাত ১০টা ৪৫ মিনিটে একদল সন্ত্রাসী বাবুছড়া ক্যায়াংঘাট এলাকার ইউপিডিএফ কর্মী মন্টু বিকাশ চাকমার বাড়ি ঘিরে ফেলে। বাড়িতে পেট্রোল দিয়ে আগুন ধরিয়ে দেয় এবং গুলিবর্ষন করে। এসময় মন্টুর স্ত্রী মাধুরী চাকমা দরজা খুলে ঘর থেকে বের হলে ঘরের ভেতর সন্ত্রাসীরা একটি গ্রেনেড ছুঁড়ে মারেন। পরে সেনাবাহিনী ও পুলিশ আসার খবর পেয়ে সন্ত্রাসীরা পালিয়ে যান।

মাধুরী চাকমা জানান,প্রায় অর্ধশতাধিক রাউন্ড গুলিবর্ষন করেছে সন্ত্রাসীরা। সেনাবাহিনী না আসলে আমাদেরকে মেরে ফেলতো। সন্ত্রাসীরা চলে যাওয়ার পর আমি গ্রামবাসীদের সহযোগীতায় ঘরের আগুন নেভাতে সক্ষম হই। তাঁর ধারনা সন্ত্রাসীরা তাঁদের স্বপরিবারকে পুড়িয়ে মারতে এসেছিল। একই সময় মন্টু চাকমা পার্শ্ববর্তী আরেক ইউপিডিএফ কর্মী মিলন চাকমার বাড়িতেও আগুন দেয়ার চেষ্টা ও গুলি বর্ষন করে সন্ত্রাসীরা।

মিলন চাকমার স্ত্রী কনিকা চাকমা জানান,বাহিরে গুলির শব্দ শুনার পর তিনি আর ঘর থেকে বের হননি। পরে সন্ত্রাসীরা চলে যাওয়ার ঘর থেকে বের হয়ে দেখেন ঘরে আগুন দেয়ার চেষ্টা করা হয়েছে।

দীঘিনালা থানার অফিসার ইনচার্জ সাহাদাত হোসেন টিটো ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন,ঘটনাস্থল থেকে একটি অবিস্ফোরিত গ্রেনেড,চারটি গুলির খোসা ও একটি তাজা গুলি উদ্ধার করা হয়েছে। ঘটনাস্থলে সেনাবাহিনী ও পুলিশ গেছে। সেনাবাহিনীর বোমা বিশেষজ্ঞ দল গ্রেনেডটি নিস্ক্রিয় করবেন।

Micro Web Technology

আরো দেখুন

স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার আহ্বান কুজেন্দ্রের

কভিড-১৯ মহামারী উত্তরণে পার্বত্য চট্টগ্রামবিষয়ক মন্ত্রণালয় থেকে প্রাপ্ত প্রধানমন্ত্রীর ইফতার সামগ্রী বিতরণ করেছে খাগড়াছড়ি পার্বত্য …

Leave a Reply