নীড় পাতা » পাহাড়ের সংবাদ » কেটে ফেলা হলো স্কুলমাঠের কড়ই গাছগুলো !

কেটে ফেলা হলো স্কুলমাঠের কড়ই গাছগুলো !

kaukhali-news-25-12-2013-piউপজেলা সদরের কাউখালী সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সামনে লাগানো সরকারি ৫টি ফুল কড়ই গাছ কেটে ফেলা হয়েছে। অথচ প্রশাসন বলছে “অভিযোগ” পেলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে !
বুধবার ঘটনাস্থলে গিয়ে দেখা যায়- উপজেলা সদরের প্রধান সড়কে কাউখালী সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সামনে ৪টি ফুল কড়ই গাছ কেটে মাটিতে ফেলে রাখা হয়েছে। চার জন শ্রমিক ৫ম গাছটি কাটায় ব্যস্ত । শ্রমিক মোঃ হাসান (৫০) ও মোঃ আশ্রাফ (৩৫) জানান মালিক বলায় তারা গাছগুলো কাটায় অংশ নিয়েছেন। অবশ্য ক্যামরায় ছবি ধারণ করতে গেলে শ্রমিকেরা দ্রুত ঘটনাস্থল থেকে সটকে পড়েন।
পাশেই দাঁড়িয়ে থেকে তদারকি করা গাছের পরিচর্যাকারী দাবীদার নাছিমা ইসলাম (৩৮) গাছগুলো কেটেছেন বলে স্বীকার করে জানালেন তার প্রয়াত স্বামী নুরুল ইসলাম উপজেলা নির্বাহী অফিসারের অনুমতি নিয়ে সড়কের দুপাশে ২০০০ সালের মার্চে এসব গাছ লাগিয়েছেন। গাছ কাটার জন্য কাউখালী উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কাছ থেকে লিখিত অনুমতি নিয়েছেন বলেও দাবী করেন। তবে কোন কাগজপত্র দেখাতে পারেননি।
কাউখালী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের এক শিক্ষক নাম প্রকাশ না করার শর্তে জানান- বিদ্যালয়ের উঠোন থেকে গাছ কেটে ফেলায় কষ্ট পেয়েছি। শিক্ষার্থীরাও গাছের ছায়ায় খেলা থেকে বঞ্চিত হবে।
কাউখালী উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ মোতাহার হোসেন জানান- আমি অনুমতি দেইনি, কেউ আমার নাম ভাঙিয়ে অপরাধ করলে ব্যবস্থা নেয়া হবে। কাউখালী থানার অফিসার ইনচার্জ শ্যামল কান্তি বড়–য়া জানান- কেউ অভিযোগ দেয়নি। সরকারি গাছ কাটলে সংশ্লিষ্ট আইনে মামলা হবে বলেও জানান তিনি।

Micro Web Technology

আরো দেখুন

লংগদুতে দুর্যোগ বিষয়ক প্রশিক্ষণ কর্মশালা

রাঙামাটির লংগদুতে উপজেলা পর্যায়ে ‘দুর্যোগবিষয়ক স্থায়ী আদেশাবলী (এসওডি)-২০১৯’ অবহিতকরণ প্রশিক্ষণ কর্মশালা অনুষ্ঠিত হয়েছে। সোমবার লংগদু …

Leave a Reply