নীড় পাতা » ব্রেকিং » কথায় কথায় গাড়ি চলাচল বন্ধে কঠোর হবে প্রশাসন

প্রশাসনের মাসিক সভায় হুঁশিয়ারি জেলা প্রশাসক

কথায় কথায় গাড়ি চলাচল বন্ধে কঠোর হবে প্রশাসন

রাঙামাটি জেলার সার্বিক আইন-শৃঙ্খলা বিষয়ে মাসিক সভা রবিবার সকালে জেলা প্রশাসক সম্মেলন কক্ষে অনুষ্ঠিত হয়েছে। রাঙামাটি জেলা প্রশাসক একেএম মামুনুর রশিদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন অতিরক্ত পুলিশ সুপার ছুফি উল্লাহ্, জেলা আনসার ও ভিডিপি কমান্ডার আব্দুল আওয়াল, ১০ উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও জেলার বিভিন্ন দপ্তর প্রধান, জনপ্রতিনিধি সুশীল সমাজের প্রতিনিধি গণমাধ্যম কর্মীরা।

সভায় অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ছুফি উল্লাহ্ বলেন, সমতলের তুলনায় রাঙামাটিতে বিভিন্ন অপরাধ অনেক কম, সেদিক থেকে এখানকার আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতি অনেক ভাল, এখানকার আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতি যাতে অবনতি না হয় সে ব্যাপারে পুলিশ সজাগ আছে, এখানে অঞ্চলিক দলগুলো দ্বন্দ্বের কারণে কিছু খুন হয়। আমরা চেষ্টা চালাচ্ছি এগুলো কিভাবে কমিয়ে আনা যায়, তবে এ ব্যাপারে সব থেকে বেশি ভূমিকা রাখতে পারে কমিউনিটির লোকজন বা নেতৃবৃন্দ। তারা উদ্যোগ নিলে ধীরে ধীরে এধরনের দ্বন্দ্ব কমে আসবে বলে আমি মনে করি। মাদক সম্পর্কে তিনি বলেন, এখানো চোলাই মদ একটি গোষ্ঠী পান করে, কিন্তু তাদের প্রতি অনুরোধ থাকে এটা যেন গৃহের মধ্যেই সীমাবদ্ধ থাকে। আইনেও তেমনটাই বলা আছে। বাইরে এলে পুলিশ অ্যাকশনে যাবে।
তিনি আরও বলেন, ইয়াবা, ফেন্সিডিল এমন মাদকের ব্যবহার বা ব্যবসাও এখানে কম, তবে আমাদের কাছে বিচ্ছিন্ন কিছু তথ্য আসে কিন্তু অভিযান চালিয়ে সফল হই না, বিশেষ করে রিজার্ভ বাজার এলাকার মানুষের মধ্য কিছুটা তথ্যের গ্যাপ আছে, তাদের সাথে আমরা বসেছিলাম, বিক্ষিপ্তভাবে তথ্য দিলে হবে না সঠিক নিয়মে দিতে হবে। আপনাদের কাছে আমার নাম্বার আছে, ওসির নাম্বার আছে সেখানে বলেন, কিন্তু সেভাবে আমরা কোন তথ্য পাচ্ছি না, ফলে ঐ সব মাদক ব্যাবসায়ীদের আমরা ধরতে পারছি না। আপনারা আমাদের সুর্নিদিষ্টভাবে বলেন তারা কখন আসে কখন যায়, তাহলে আমরা তাদের গ্রেপ্তার করতে পারব। সব দায়িত্ব পুলিশের না, সমাজেরও দায়িত্ব আছে, আপনারা আপনাদের সে দায়িত্ব পালন করুন, আমাদের প্রধানমন্ত্রী মাদকের ব্যাপারে জিরো টলারেন্স নীতি ঘোষণা করেছেন, সে নির্দেশনা মেনেই আমরা কাজ করে যাচ্ছি, এটা সফল করতে আপনাদের সহযোগিতা লাগবে। এলাকার জনগণ সচেতন হলে কোন অপরাধীই পার পাবে না।

তিনি ফিসারি বাঁধ নিয়ে বলেন, এখানে অনেকটা নিয়মনীতি উপেক্ষা করে যে যার মত পণ্য ওঠানামা করছে, ফলে বাঁধটির ক্ষত দিন দিন বাড়ছে, পুলিশ বা প্রশাসন দিয়ে এদের মোকাবিলা করা যাবে না, জনগণকে সচেতন হতে হবে। বাঁধটি যদি ভেঙ্গে যায় তাহলে রাঙামাটিবাসী কী দুর্ভোগ হবে সেটা সবাই জানেন। তাই আপনাদের সচেতন হয়ে প্রশাসনকে সহযোগিতা করার আহবান করছি।

ফুটপাতের কাজ শেষ হতে বা শহরে খোঁড়াখুঁড়ি কবে শেষ হবে জানতে চাইলে সভায় পৌর মেয়র আকবর হোসেন চৌধুরী বলেন, সব কাজ প্রায় শেষ পর্যায়ে রয়েছে, অল্প কিছুদিনের মধ্যেই রাঙামাটি শহরের ফুটপাতের সকল কাজ শেষ হয়ে যাবে।

ক্ষতিগ্রস্ত সড়ক মেরামতের বিষয়ে সড়ক বিভাগের এসডিও শংকর চন্দ্র পাল জানান, সড়ক মেরামতে যে ডিপিপি প্রেরণ করা হয়েছে সেটা আগামী ২০ আগস্ট একনেকে উত্থাপন করা হবে। আশা করছি এই সভায় প্রকল্পটি পাশ হবে।

সভাপতির বক্তব্যে জেলা প্রশাসক একেএম মামুনুর রশিদ বলেন, আমরা সকলে মিলে রাঙামাটি এই ছোট শহরটাকে সুন্দর রাখবো। আমরা নীতিগতভাবে একমত হয়েছি রাঙামাটি শহবে লাইসেন্সবিহীন ও হেলমেট ছাড়া কোনও মোটরসাইকেল চলতে দিব না, এ ব্যাপারে সকলে সচেতন হবেন, যেভাবে বেপোরোয়াভাবে মোটরসাইকেল চালানো হয় এটা কাম্য নয়। তিনি বলেন, শহরের অটোরিক্সার ক্ষেত্রেও আমরা কঠোর হবো, অবৈধ অটোরিক্সাও চলতে দিব না, যেগুলো এখন চলছে সেগুলোকে লাইসেন্স দিয়ে দিব, এরপর আর কোন অটোরিক্সা যাতে এখানে না চলে সে ব্যাপারে মালিক ও শ্রমিক নেতৃবৃন্দের দৃষ্টি আকর্ষণ করেন।

জেলা প্রশাসক আরও বলেন, এখানে কাজ করতে গেলে একটি স্বার্থান্বেষী মহল বা ব্যক্তি উঠেপড়ে লেগে যায়, তারা তাদের স্বার্থ রক্ষার জন্য কথায় কথায় গাড়ি চলাচল বন্ধ করে দেয়, রাস্তা বন্ধ করে দিয়ে মানুষকে কষ্ট দেয়, ভবিষ্যতে এমটা করলে তা সহ্য করা হবে না, তাদের কঠোর ভাবে দমন করা হবে। আর এ সকল বিষয়ে আমি জনপ্রতিনিধিদের সহযোগিতা কামনা করছি, আপনারা এগুলো দেখবেন, না হয় প্রশাসন কঠোর হলে তখন তার দায় প্রসাশনের ওপর চাপাতে পারবেন না, আমরা জনগণের জন্য চাকরি করি তাদের সুবিধাই আমাদের কাছে বিবেচ্য হবে।

সভায় ডিসি বলেন, আমাদের সকলের প্রচেষ্টায় ডেঙ্গু মোকাবেলায় সফল হয়েছি। সারা দেশের মত এখানে ডেঙ্গুর প্রাদুর্ভাব পরিলক্ষিত হয়নি। রাঙামাটিতে ডেঙ্গু আক্রান্তের হার অন্যান্য জেলার তুলনায় অতি নগণ্য, গত দুদিনে মাত্র একজন রোগি ভর্তি হয়েছে। এ জন্য আমি স্বাস্থ্য বিভাগ পৌরসভাসহ সংশ্লিষ্ট সকলকে ধন্যবাদ জানাচ্ছি। এখন যেভাবে পরিষ্কার পরিচ্ছন্নতা চলছে এ ধারা যাতে সার বছর ধরে চলে সে ব্যাপারে সকলের সহযোগিতা কামনা করেন ডিসি।

Micro Web Technology

আরো দেখুন

প্রতিবন্ধী নারীকে ধর্ষণ চেষ্টা, যুবক গ্রেফতার

রাঙামাটিতে বুদ্ধি ও শারিরীক প্রতিবন্ধী এক নারীকে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগে এক যুবককে গ্রেফতার করা হয়েছে। …

Leave a Reply