নীড় পাতা » খাগড়াছড়ি » আটকের পর মুচলেকায় মুক্তি পেলেন ১০ প্রার্থী !

আটকের পর মুচলেকায় মুক্তি পেলেন ১০ প্রার্থী !

election-cover-02খাগড়াছড়ি জেলার দীঘিনালায় বিএনপি’র সম্ভাব্য ১০ চেয়ারম্যান ও ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থীকে আটকের পর মুচলেকা নিয়ে ছেড়ে দিয়েছে দীঘিনালা থানা পুলিশ। শনিবার সন্ধ্যার দিকে ঘটনাটি ঘটেছে বলে জানা গেছে।
এরা হচ্ছে, বিএনপির’র চেয়ারম্যান পদে মনোনয়নপত্র দাখিলকারীর উপজেলা বিএনপির সভাপতি মো: মোসলেম উদ্দিন, সহ-সভাপতি মো: শফিকুল ইসলাম, সাধারন সম্পাদক মো: আবু তালেব, মেরং ইউপি চেয়ারম্যান মো: মোশাররফ হোসেন, বিএনপি’র নেতা খনি রঞ্জন ত্রিপুরা ও শান্তি প্রিয় চাকমা।
ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী পদে মনোনয়নপত্র দাখিলকারী উপজেলা যুবদলের সাধারন সম্পাদক আব্দুর রহমান,কবাখালী ইউপি মেম্বার নুরুল আফসার মুনাফ,মেরং ইউপি মেম্বার মো: জাহাঙ্গীর আলম দুলাল,মো: আ: সালাম।
বিএনপির নেতা ও সম্ভাব্য প্রার্থী খনি রঞ্জন ত্রিপুরা জানান, সন্ধ্যায় মাগরিবের নামাজ শেষে দীঘিনালা থানার সামনে বসে চা খাচ্ছিলাম। এ সময় ওসির নেতৃত্বে একদল পুলিশ এসে আমাদের ঘেরাও করে ফেলে এবং পরে সেখান থেকে থানায় নিয়ে যায়। সেখানে ভবিষ্যতে আর নির্বাচনী আচরণবিধি লংঘন করবো না এবং করলে বিধি অনুযায়ী শাস্তি হবে মর্মে মুচলেকা নিয়ে ছেড়ে দেয়।

এই বিষয়ে দীঘিনালা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সাহাদাৎ হোসেন টিটু মুচলেকা নেয়ার বিষয়টি অস্বীকার করে বলেন, প্রার্থীরা মূলত এক জায়গায় বসে বৈঠক করছিলেন যা আচরণবিধি লংঘনের মধ্যে পরে। আমি মূলত তাদের থানায় এনে বুঝিয়ে দিয়েছি।

দীঘিনালা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ফজলুল জাহিদ পাবেল বলেন, ঘটনাটি আমি ওসি থেকে শুনে বলেছি তাদের ডেকে আচরণ বিধির বিষয়টি বুঝিয়ে দিতে। এর বেশি কিছু করতে বলিনি।

Micro Web Technology

আরো দেখুন

জনপ্রিয় হচ্ছে ‘তৈলাফাং’ ঝর্ণা

করোনার প্রভাবে দীর্ঘদিন বন্ধ ছিল খাগড়াছড়ির পর্যটন ও বিনোদনকেন্দ্র। তবে টানা বন্ধের পর এখন খুলেছে …

Leave a Reply